• শুক্রবার, ২২ অক্টোবর ২০২১, ১০:২০ অপরাহ্ন

ডুলাহাজারায় বালুর গাড়ী থেকে চাঁদা দাবির অভিযোগ

চকরিয়া প্রতিনিধি / ৮৮৬ Time View
Update : মঙ্গলবার, ৪ মে, ২০২১

চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারায় বালুর গাড়ি থেকে চাঁদা দাবির অভিযোগ উঠেছে। সোমবার (৪ মে) দিবাগত রাত দেড় টার দিকে স্থানীয় রংমহল সড়কে এ ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, ডুলাহাজারা রংমহল সড়ক একটি ব্যস্ততম বানিজ্যিক মাধ্যম। এসড়ক দিয়ে স্থানীয় ও পাহাড়ি অঞ্চল থেকে বালু, ইট, মাটি, গাছ, বাঁশ, লাকড়ি ইত্যাদি প্রতিনিয়ত সরবরাহ হচ্ছে। এদিকে রংমহল এলাকার নুরুল কবির নুুরু’র পুত্র আবুল কালাম সোনা মিয়া (৩৫) বর্তমানে নিজেকে একজন বালু ব্যবসায়ী দাবি করছে। এর আগে যুবলীগ নেতা পরিচয় দিত। চায়না প্রকল্পের মাটি কাটার স্কেভেটর গাড়ির চোরাই তেল সাপ্লাই থেকে শুরু করে এলাকায় তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন অপকর্মের অভিযোগ রয়েছে।
ডুলাহাজারা বালুরচর এলাকার বাসিন্দা বাহার উল্লাহর ছেলে সাইফুল ইসলাম পুতু অভিযোগে জানান, রংমহল সড়কে তিনি ইজারার টাকা দিয়ে দীর্ঘ সময় বালুর ব্যবসা করে আসছেন। সোমবার রাতে তার একটি বালু বোঝাই ট্রাক ডুলাহাজারা বাজারে আসার পথে রংমহল এলাকায় গাড়িটি গতিরোধ করে। সোনা মিয়া ও তার নেতৃত্বে একটি চক্র নির্ধারিত চাঁদা না দিলে গাড়ি ছেড়ে দিবে না বলে উল্টো বিভিন্ন প্রকার হুমকি-ধমকি দিচ্ছিল। এ খবর পেয়ে সাইফুল ইসলাম পুতু চকরিয়া থানার টহল ডিউটিরত পুলিশকে অবগত করলে তারা তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে যান। কিন্তু পুলিশ আসার বিষয়টি টের পেয়ে সোনা মিয়া তার দলবল নিয়ে পালিয়ে যায়।
এ ব্যপারে অভিযুক্ত আবুল কালম সোনা মিয়া বালুর গাড়ী আটক করার বিষয়টি সত্যতা জানান। তবে তার দাবী, সাইফুল ইসলাম পুতুর কাছ সে ৪৮ হাজার টাকা পাবেন। সেই পাওনা টাকার জন্য গাড়ী আটক করেছে।
চকরিয়া থানার কর্মকর্তা উপপরিদর্শক (এসআই) মুজিবুর রহমান বলেন, চাঁদার জন্য বালুর গাড়ি আটকানোর খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে যাই। ও-ই সময় জড়িতরা পালিয়ে যায়। পরে ফোনে সোনা মিয়া নামের ও-ই যুবক পুলিশের কাছে ফোন করে। সে বলেছে সাইফুল ইসলাম পুতুর কাছ থেকে তিনি ৪৮ হাজার টাকা পাবেন। তাই তারা বালুর গাড়ি আটক করেছে। উভয়ের কাগজপত্র প্রমাণাদি নিয়ে থানায় আসতে তাদের নির্দেশ দিই।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category