• বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ০১:০৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
ফুলবাড়ীতে খেলার মাঠ দখল মুক্ত করার দাবিতে এলাকাবাসীর মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ ঠাকুরগাঁও রাণীশংকৈলে নজরুল জয়ন্তী পালিত বেনাপোলে দুই যুবকের পায়ুপথ থেকে মিললো ৩টি সোনার বার পেকুয়ায় নিহত মুক্তিযোদ্ধা কালু মিয়ার সম্পত্তির ভাগ পাননি এতিম নাতি বেলাল মাঝি! ঈদের দিনে যুবক হত্যা চেষ্টার মামলায় দুই আসামী র‌্যাবের জালে বন্দি ছাত্রলীগকে কাপুরুষ সন্ত্রাসী বানিয়েছে আ’লীগ : রিজভী যুক্তরাষ্ট্রে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে গুলি, ২১ ছাত্র-শিক্ষক নিহত প্রথম সেশনে ২ উইকেট, ম্যাথুজ-ধনাঞ্জয়ে এগিয়ে যাচ্ছে শ্রীলঙ্কা ইভিএম বিশেষজ্ঞদের সাথে বৈঠকে ইসি রাঙ্গামাটিকে হারিয়ে ফাইনালে চকরিয়া কোরক বিদ্যাপীঠ

বাংলা একাডেমির নতুন মহাপরিচালক কক্সবাজারের কবি মুহম্মদ নূরুল হুদা

নিজস্ব প্রতিবেদক / ৯৩ Time View
Update : সোমবার, ১২ জুলাই, ২০২১

বাংলা একাডেমির নতুন মহাপরিচালক হচ্ছেন কবি ও কথাসাহিত্যিক মুহম্মদ নূরুল হুদা। সোমবার জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন প্রকাশ করা হয়েছে।

আগামী তিন বছরের জন্য তাকে এ পদে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে বলে প্রজ্ঞাপনে জানানো হয়। এর আগে তিনি নজরুল ইনস্টিটিউটের নির্বাহী পরিচালক ছিলেন।

সংক্ষিপ্ত পরিচিতিঃ তাঁর জন্ম ৩০ সেপ্টেম্বর ১৯৪৯, পোকখালী, ঈদগাঁও, কক্সবাজার। পিতা: হাজি মুহাম্মদ সেকান্দর। মা: আনজুমান আরা বেগম। এসএসসি ১৯৬৫, ঈদগাঁও হাইস্কুল: কুমিল্লা বোর্ডের মানবিক বিভাগে মেধা তালিকায় দ্বিতীয় স্থান। এইচএসসি ১৯৬৭, ঢাকা কলেজ। বিএ অনার্স ১৯৭০, এমএ ১৯৭১, ইংরেজী ভাষা ও সাহিত্য, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। রিসার্স ইস্টার্ন (আর,আই), ইস্ট ওয়েস্ট সেন্টার, হনলুল হাওয়াই, আমেরিকা।

১৯৭১ সালে মক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহন করেন। মুক্তিযোদ্ধাদের সংগটিত পৈত্রিক সম্পত্তি থেকে সহযোগিতা প্রদান করেন। অধ্যাপনা: ইংরেজী বিভাগ, তালশহর কলেজ ব্রাহ্মণবাড়িয়া ১৯৭০-১৯৭১, শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ ১৯৭২ প্রভাষক, খন্ডকালীন, ইংরেজী বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। ১৯৭৩ সালে বাংলা একাডেমীতে ২০০২ সালে প্রত্যাবর্তন করে একডেমীর পরিকল্পনা প্রশিক্ষণ ও পাট্যপুস্তক বিভাগের দায়িত্ব পালন করেন।

নজরুল ইরস্টিউট-এর নিবার্হী নির্বাহী পরিচালক হিসাবে নজরুল জন্মশতবষির্কী উদযাপন জাতীয় কমিটির সদস্যসচিব এবং দেশে-বিদেশে নজরুল চর্চা ও প্রসারে ব্যাপক ভূমিকা পারন করেন। বাংলা একাডেমি আয়োজিত একুশে বই মেলার সদস্য সচিব হিসাবে একাধিকবার সফলতার সাথে দায়িত্ব পালন করেন। ২০০৬ সালে তিনি বাংলা একডেমীর অন্যতম পরিচালক হিসাবে অবসরকালিন ছুটি (এলপিআর) গ্রহন করেন।

সাহিত্যচর্চা প্রাশাসনিক দায়িত্বের পাশাপাশি দেশের একজন শীর্ষস্থানীয় হোমিও চিকিৎসক হিসাবে খ্যাত। ঢাকা ও কক্সাবজার ঈদগাতে নিজস্ব চেম্বারে জটিল রোগীদের চিকিৎসা করেন। প্রতিষ্ঠাতা সাহিত্য সম্পাদক : উর্মিমালা সাহত্য সংসদ (১৯৬৫) ঈদগাও কক্সবাজার। সংসদের মুখপত্র হিসাবে জেলার প্রথম সাহিত্য সাময়িকী কলতান (১৯৬৫) সম্পাদনা। ৬০ এর দশকে ঢাকায় লেখক সংগ্রাম শিবির প্রতিষ্ঠায় অন্যতম ভূমিকা পালন করেন।

স্বাধীনতার পরে লেখক সংগ্রাম শিবির বাংলাদেশ লেখক শিবির নামে প্রতিষ্ঠিত হলে তিনি এর অন্যতম আহবায়ক নির্বাচিত হন। পরে তিনি বাংলাদেশের লেখকদের প্রতিনিধিত্বশীল সংগঠন বাংলাদেশ রাইটার্স ক্লাব এর আন্যতম প্রতিষ্ঠাতা ও সাধারন সম্পাদক, র্বতমানে এর সভাপতি। প্রতি বছর ৩১ডিসেম্বর বিশ্ব লেখক দিবস এর প্রবক্তা হিসাবে দেশে বিদেশে ব্যাপক আলেচিত।

এছাড়া তিনি তৃণমূলীয় লোক সাহিত্যও সংস্কৃতির সন্ধান সংরক্ষণ ও মুল্যায়নে গঠিত প্রতিষ্ঠাতা ও কেন্দ্রিয় পরিচালক।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category