• শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ১২:৩২ অপরাহ্ন
শিরোনাম
বানিয়ারছড়ায় গুদী’র নামে চাঁদা আদায় বন্ধের নির্দেশ দেন ইউএনও কাকারায় ব্রীজ থেকে পড়ে যুবকের মৃত্যূ মাতামুহুরী নদীতে পড়ে মানসিক ভারসাম্যহীন বৃদ্ধার মৃত্যু ঠাকুরগাঁও রানীশংকৈলে ভুমিসেবা সপ্তাহ পালিত চকরিয়ায় নোবেল হত্যা মামলার আসামি আরিফকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ চকরিয়ায় অগ্নিকান্ডে ৩টি বসতঘর পুড়ে ছাই; পুড়েনি কুরআন শরীফ চকরিয়ায় বোরো ধানের বাম্পার ফলন; কৃষকরা সোনালী ধান ঘরে তুলে নিচ্ছে পেকুয়ায় মার্কেট থেকে সংযোগ বিচ্ছিন্ন, ফক্সি কাগজপত্রের তথ্য ফাঁস, বিদ্যুতের ম্যানেজারের বিরুদ্ধে জিডি চকরিয়ায় বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট’র বালক-বালিকা ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত দূর্ঘটনা এড়াতে মহাসড়কের দুইপাশের শোলেডার ভরাট হবেতো?

বিএসএফ এর হয়রানির কারনে বেনাপোল বন্দরে ৭ ঘন্টা আমদানি রফতানি বন্ধের পর সচল

মো: সাগর হোসেন,বেনাপেল প্রতিনিধিঃ / ৯৯ Time View
Update : সোমবার, ১৬ আগস্ট, ২০২১

ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ এর হয়রানির কারনে দুই দেশের বন্দর ব্যবহারকারি সংগঠনগুলে আমদানি রফতানি বন্ধ করে দেয়। প্রায় ৭ ঘন্টা বন্ধ থাকার পর বিকাল ৪ টার সময় আবার চালু হয়। সোমবার সকাল থেকে দুই দেশের আমদানি রফতানি বানিজ্য বন্ধ করে দেওয়া হয়।

সুত্র মতে ভারতের পেট্রাপোল ও বেনাপোল বন্দরে আমদানি রফতানি ট্রাক এবং চালকদের প্রবেশ এর মুখে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী ঘন্টার পর ঘন্টা দাঁড়িয়ে রেখে হয়রানি করে । চালকদের নানা ধরনের প্রশ্ন, ট্রাক তল্লাশি সহ সময় ক্ষেপন করায় দুই দেশের বন্দও ব্যবহারকারী সংগঠনগুলো আমদানি রফতানি বন্ধ করে দেয়। এতে দুই দেশের পণ্য বহনকারী শত শত ট্রাক আটকা পড়ে যায়। এসব পণ্যর মধ্যে কাচামাল জাতিয় পণ্যও রয়েছে।

বেনাপোল বন্দর এর সিএন্ডএফ কর্মচারী ইউনিয়ন এর সাধারন সম্পাদক সাজেদুর রহমান বলেন সকাল থেকে বিএসএফ এর হয়রানির প্রতিবাদে দুই দেশের ব্যবসায়িরা আমদানি রফতানি বানিজ্য বন্ধ করে দেয়। এরপর ভারতের সিএন্ডএফ ও পেট্রাপোল বন্দর ব্যবহারকারী সংগঠনগুলো বিএসএফর সাথে বৈঠক করে বিকাল ৪ টায় আবারও চালু করে বানিজ্য।

ভারতের প্রেট্রাপোল বন্দরের সিএন্ডএফ ওয়েল ফেয়ার সংগঠনের সাধারন সম্পাদক কার্তিক চন্দ্র বলেন, পণ্য নিয়ে দুই দেশে প্রবেশ মুখে বিএসএফ অযথা হয়রানি করে। এবং সময় ক্ষেপন করায় পচনশীল জাতীয় পণ্য ক্ষতি গ্রস্থ হয়। সব মিলিয়ে তাদের দীর্ঘ হয়রানির কারনে বাধ্য হয়ে দুই দেশের বন্দর ব্যবহারকারী সংগঠনগুলো আলোচনার মাধ্যে আমদানি রফতানি বন্ধ করে দেয়। এরপর বন্দর ব্যবহার কারি সকল নেতাদের সমন্বয়ে বিএসএফ এর সাথে বৈঠক হওয়ায় আবারও বেলা ৪ টার দিকে বানিজ্য শুরু হয়।

বেনাপোল কাস্টমস এআরও শামিমুর রহমান বলেন, দীর্ঘ দিন ধরে ভারতীয় বিএসএফ পণ্যবহনকারী গাড়ি চালকদের হয়রানি করে থাকে। এ হয়রানির প্রতিবাদে দুই দেশের ব্যবসায়িরা সকাল থেকে বানিজ্য বন্ধ করে দেয়। তবে বিকাল ৪ টার পর আবারও বানিজ্য সচল হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category