• রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:৩৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম
তত্ত্বাবায়ক সরকারের স্বপ্ন দেখে লাভ নেই : তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী সম্প্রীতির বাগেরহাট গড়ার প্রত্যয় নিয়ে আন্ত:ধর্মীয় সংলাপ অনুষ্ঠিত মালুমঘাটে খাল থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন, হুমকিমূখে জনবসতি ডেঙ্গু প্রতিরোধে আওয়ামীলীগ নেতা বোরহান উদ্দীন চৌধুরী’র মশারি বিতরণ আনোয়ারায় ইয়াবাসহ আটক ৪ ঠাকুরগাঁও রাণীশংকৈলে কাশিপুরে কৃষকলীগের আহ্বায়ক কমিটির সভা সক্রিয় চুর সিন্ডিকেটঃ আতঙ্কে খুটাখালীবাসী চকরিয়া পৌরসভায় শান্তিপূর্ণ নির্বাচন নিশ্চিতে প্রস্তুত প্রশাসন গ্রহণযোগ্য পন্থায় নির্বাচন কমিশন গঠন করা হবে : ওবায়দুল কাদের গোপনে বা প্রকাশ্যে নৌকার বিরোধীতাকারীদের আওয়ামীলীগে স্থান হবে না- সিরাজুল মোস্তফা

মাদক পাচারকারী রোহিঙ্গা এক যুবকের পেট কেটে ১হাজার ৯৫০পিস ইয়াবা উদ্ধার

চকরিয়া(কক্সবাজার)প্রতিনিধি / ৭৪ Time View
Update : শুক্রবার, ১৬ এপ্রিল, ২০২১

কক্সবাজারের চকরিয়ায় পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে জাকির হোসেন (২২) নামে এক মাদক পাচারকারী এক রোহিঙ্গা থেকে পেট সার্জারি করে ১হাজার ৯৫০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। ইয়াবা উদ্ধার পরবর্তী মাদক পাচারকারী জাকির হোসেনকে আটক করে পুলিশ পাহারায় হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।
শুক্রবার (১৬এপ্রিল) রাতে মালুমঘাট মেমোরিয়াল খ্রিস্টান হাসপাতালে পুলিশ সিজারিয়ান অপারেশনের মাধ্যমে পেটের ভেতর থেকে এ ইয়াবা উদ্ধার করেন।

পুলিশ সূত্রে জানাগেছে,উখিয়া কুতুপালং শরণার্থী ক্যাম্পের এক রোহিঙ্গা যুবকের পেটে ব্যথা অনুভব করার পর চকরিয়াস্থ মালুমঘাট মেমোরিয়াল খ্রিস্টান হাসপাতালে নেওয়া হয়। এ সময় আলট্রাসনোগ্রাফিসহ বিভিন্ন পরীক্ষার পর সিজারিয়ান (সার্জারি) মাধ্যমে পেটের ভেতর থেকে ইয়াবা ভর্তি ৩৯টি প্যাকেট বের করা হয়। পরে এসব প্যাকেট খুলে ১হাজার ৯৫০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। এই প্রথম কোনো ইয়াবা পাচারকারী বা কারবারির পেট থেকে সিজারিয়ান মাধ্যমে বের করা হলো ইয়াবা ট্যাবলেট। এনিয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষসহ সংশ্লিষ্ট সবাই রীতিমতো অবাক হয়ে যান।
হাসপাতালের বেডে চিকিৎসাধীন মাদক পাচারকারী রোহিঙ্গা যুবকের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা রুজু করেছে পুলিশ।

চকরিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. কামরুজ্জামান জানান, খবর পেয়ে হাসপাতালে গিয়ে প্যাকেটগুলো খুলে ইয়াবাগুলো কর্তব্যরত চিকিৎসকদের উপস্থিতিতে জব্দ করা হয়।

তিনি জানান, কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্প-২ এবং এক নম্বর ব্লকের শরণার্থী মোহাম্মদ ইলিয়াছের ছেলে জাকির হোসেনকে (২২) ক্যাম্পে কর্মরত এমএসএফ নামক একটি এনজিও সংস্থার প্রতিনিধিরা শুক্রবার সন্ধ্যার আগে চকরিয়াস্থ মালুমঘাট মেমোরিয়াল খ্রিস্টান হাসপাতালে নিয়ে যান। এ সময় পেটে প্রচণ্ড ব্যথা অনুভব করলে আলট্রাসনোগ্রাফিসহ বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়। পেটের ভেতর কোনো বস্তু থাকার বিষয়টি নিশ্চিত হলে পেটে সিজারিয়ান অপারেশনের সিদ্ধান্ত নেয় চিকিৎসকরা। এর পর আসল রহস্য বেরিয়ে পড়ে।

এ ব্যাপারে চকরিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের বলেন, এই প্রথম কোনো মানুষের পেট কেটে (সার্জারি) অপারেশন করে ইয়াবার প্যাকেট বের করা হলো। যদিওবা আগে পায়ুপথ দিয়ে ইয়াবা বের করার ঘটনা রয়েছে অহরহ।
তিনি জানান, পুলিশ প্রহরায় ইয়াবা পাচারকারী রোহিঙ্গা নাগরিকের চিকিৎসা চলছে এবং তার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা রুজু করা হয়েছে। পরবর্তীতে আদালতের নির্দেশনা মোতাবেক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category