• রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ১১:৪৪ অপরাহ্ন
  • [gtranslate]

বাবর-খুশদিলে পাকিস্তানের দারুণ জয়

বিবিসি একাত্তর ডেস্ক / ৯৩ Time View
আপডেট : বৃহস্পতিবার, ৯ জুন, ২০২২

ঘরের মাঠে ওয়ানডে সিরিজে শুরুটা দারুণ হলো পাকিস্তানের। বুধবার মুলতানে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৫ উইকেটে হারিয়েছে পাকিস্তান।
ব্যাট হাতে পাকিস্তানের জয়ের নায়ক অধিনায়ক বাবর আজম। তিনি হাঁকান সেঞ্চুরি। ইমামের পর শেষ দিকে খুশদিলের দারুণ ব্যাটিং পাকিস্তানকে পৌছে যায় তিন শতাধিক রানের ইনিংসে।

আগে ব্যাট করতে নেমে শেই হোপের সেঞ্চুরিতে ৮ উইকেটে ৩০৫ রান করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। জবাবে ৪ বল হাতে রেখে লক্ষ্যে পৌঁছে পাকিস্তান, ৩০৬/৫। ম্যাচ সেরা সেঞ্চুরি না করেও খুশদিল শাহ। তিন ম্যাচ সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল পাকিস্তান।

বড় টার্গেটে খেলতে নেমে পাকিস্তান শুরু থেকেই ছিল সাবলীল। কখনো মনে হয় ম্যাচ থেকে ছিটকে যাচ্ছে দলটি। শেষের দিকে এসে বলের চেয়ে রানের হিসাব ছিল বেশি। ২৪ বলে এক সময় দরকার ছিল ৪৪। ৪৭তম ওভারে শেপার্ডকে তিন ছক্কা হাঁকিয়ে ম্যাচে স্বস্তি আনেন পাকিস্তানের খুশদিল।

১২ বলে ২১ রানের কঠিন সমীকরণও এক চার ও এক ছক্কায় সমাধান করেন তিনি। শেষ ওভারে দরকার ছিল ছয় রান। দ্বিতীয় বলে এক ছক্কা হাঁকিয়ে দলকে জেতান নওয়াজ।

তবে দলের জয়ে সিংহভাগ অবদান অধিনায়ক বাবর আজম। তিনি করেন ওয়ানডে ক্যারিয়ারে ১৭তম সেঞ্চুরি। ১০৭ বলে ১০৩ রান করে তিনি আউট হন জোশেফের বলে মায়ার্সের হাতে ক্যাচ দিয়ে। তার ইনিংসে ছিল নয়টি চারের মার।

ফিফটির দেখা পেয়েছেন ইমাম উল হক। ৭১ বলে তিনি করেন ৬৫ রান। ৬১ বলে ৫৯ রান করেন মোহাম্মদ রিজওয়ান। ২৩ বলে এক চার ও চার ছক্কায় ৪১ রানের ঝলমলে ইনিংস খেলে অপরাজিত থাকেন খুশদিল শাহ।
এর আগে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুতে কাইল মায়ার্সকে হারালেও দলকে ভালো স্কোর এনে দেন আরেক ওপেনার শেই হোপ। ব্রুকসের সঙ্গে তার জুটিতে দলকে পৌছে যায় ১৬৩ রানে।

ব্যক্তিগত ৭০ রানে বিদায় নেন শামারহ ব্রুকস। নওয়াজের বলে তিনি ক্যাচ দেন শাদাবের হাতে। অধিনায়ক নিকোলাস পুরান ২১ রান করে বিদায় নেন হ্যারিস রউফের বলে। ব্রেন্ডন কিং (৪) টিকতে পারেননি।
তবে ষষ্ঠ জুটিতে দলকে তিনশ পার করেন রভম্যান পাওয়েল ও রোমারিও শেপার্ড। ২৩ বলে ৩২ রান করেন পাওয়েল। ১৮ বলে ২৫ রান করেন শেপার্ড। ব্যাট হাতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে চমক দেখান ওপেনার শেই হোপ। ১৩৪ বলে তিনি খেলেন ১২৭ রানের ঝকঝকে ইনিংস। তার ইনিংসে চিল ১৫টি চার ও একটি ছক্কার মার।

বল হাতে পাকিস্তানের হয়ে সর্বোচ্চ ৪ উইকেট নেন হ্যারিস রউফ। শাহিন শাহ আফ্রিদি দুটি, মোহাম্মদ নওয়াজ ও শাদাব খান একটি করে উইকেট নেন।

আগামীকাল শুক্রবার মুলতানেই অনুষ্ঠিত হবে দ্বিতীয় ওয়ানডে। ১২ জুন একই ভেন্যুতে তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডে ম্যাচ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো ক্যাটাগরি