• মঙ্গলবার, ২৮ মার্চ ২০২৩, ১১:১৪ অপরাহ্ন
  • [gtranslate]
শিরোনাম
বিআরটিএ ও ডামের উদ্যোগে ১৮০ গণপরিবহণ চালককে প্রশিক্ষণ প্রদান সিংড়ায় পুর্ব শত্রুতার জেরে বাড়িতে হামলা গাইবান্ধায় সড়ক উন্নয়ন কাজের ভিত্তি প্রস্থর স্থাপন উদ্বোধন করেন হুইপ গিনি গাইবান্ধার ফুলছড়ি উদাখালী উচ্চ বিদ্যালয়ে দ্বিতল একাডেমিক ভবন নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করেন এমপি রিপন গোবিন্দগঞ্জ বিনামূল্যে পাটবীজ বিতরণ ভোট না দেয়ায় জেলেদের চাল দেয়নি ইউপি সদস্য আমতলী গাজীপুর বন্দর বাজারের স্টলে গোয়ালঘর! পেকুয়ায় ঋনদান সমিতির ৭হাজার সদস্যের মাঝে ইফতার সামগ্রী বিলি চকরিয়ায় জায়গা দখলের চেষ্টায় দুর্বৃত্তের হামলায় রিক্সা চালক ও নারীসহ আহত-৩ পেকুয়ায় সাইনবোর্ড দিয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধার জায়গা দখলে নিল ইউপির চেয়ারম্যান

পাঠ্যবইতে বৃহৎ পরিসরে বঙ্গবন্ধুর ইতিহাস যুক্ত করার চেষ্টা করছি : শিক্ষামন্ত্রী

জবি প্রতিবেদক / ৮৭ Time View
আপডেট : বুধবার, ২৪ আগস্ট, ২০২২

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, ‘বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে আমাদের আরো বেশী গবেষণা করতে হবে, তাই নতুন পাঠ্যবইতে আরো বৃহৎ পরিসরে বঙ্গবন্ধুর ইতিহাস যুক্ত করার চেষ্টা করছি।’

বুধবার জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) কেন্দ্রীয় মিলনায়তনে শিক্ষক সমিতি কর্তৃক আয়োজিত জাতীয় শোক দিবসের আলোচনা সভায় শিক্ষামন্ত্রী এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুর ক্ষমতার প্রতি কোনো মোহ ছিল না। কিন্তু তিনি বলতেন, ‘দেশের মানুষের কল্যাণের জন্য আমাকে ক্ষমতায় যেতে হবে।’ ঠিক একইভাবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমি ক্ষমতা চাই না, তবে দেশের মানুষের ভাগ্য বদলের জন্য ক্ষমতায় যেতে চাই।’ আর তার ক্ষমতায় যাওয়ার ফলশ্রুতিতে বাংলাদেশে আজ কোনো প্রত্যন্ত এলাকা নেই। সবখানে উন্নয়নের ছোঁয়া পৌঁছে গেছে।

ডা. দীপু মনি বলেন, হত্যাকারীরা যদি চাইত বঙ্গবন্ধুকে সরিয়ে রাষ্ট্র ক্ষমতায় যেতে, তাহলে শুধু তাকে হত্যা করলে হতো। তার পরিবারের পুরো সদস্যদের কেন হত্যা করা হলো? হত্যাকারীদের উদ্দেশ্য বঙ্গবন্ধুকে নিঃশেষ করা নয়, বরং পুরো একটি আদর্শকে নিঃশেষ করে দেয়া।

সভায় শিক্ষক সমিতির সহ-সভাপতি অধ্যাপক মো: ছিদ্দিকুর রহমানের সভাপতিত্বে আরো বক্তব্য রাখেন- জবি কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক কামালউদ্দীন আহমদ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন জবি শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক আবুল কালাম মো: লুৎফর রহমান। প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক মো: আবুল হোসেন ও মুখ্য আলোচক হিসেবে ছিলেন ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক মোহাম্মদ সেলিম।

এ ছাড়াও আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন- বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন অনুষদের ডিন, বিভাগীয় চেয়ারম্যান, বিভিন্ন দফতরের পরিচালক, প্রক্টর, শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো ক্যাটাগরি