• শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৪:২৫ অপরাহ্ন
  • [gtranslate]
শিরোনাম
খুটাখালীতে তমিজিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষের বাড়ীতে দুর্ধর্ষ চুরি সাফারী পার্কের সিংহ রাসেলের অকাল মৃত্যূ বিপ্লব ঘটবে অর্থনীতিতে! তাপবিদ্যুৎ কাজের অগ্রগতি ৭৫ শতাংশ – হচ্ছে সমুদ্রবন্দর ও রেললাইন! ঠাকুরগাঁও-৩ আসনে বিজয়ী হলেন জাতীয় পার্টির হাফিজউদ্দীন আহমেদ চকরিয়া ইউপি সদস্যের নেতৃত্বে হামলা ভাংচুর ও মারধর, আহত-৫ টেকনাফ মৌচনী ক্যাম্পের রোহিঙ্গা নুর নাহার এখন বাংলাদেশী পেকুয়ায় কর্মজীবির জায়গায় রাতেই স্থাপনা নির্মাণ পেকুয়ায় দরবার সড়কের বেহাল দশায় চরম দুর্ভোগ! ফাঁসিয়াখালীতে সামাজিক বনায়নের গাছ কর্তনে পাচারকালে জব্দ চকরিয়ায় প্রতিবন্ধির বসতভিটা কেড়ে নিতে প্রবাসী নুরুল আমিনের হুমকি

চকরিয়ায় ১০দিনেও মেলেনি স্কুল ছাত্রীর সন্ধান ; সন্ধান চেয়ে পরিবারের পক্ষ থেকে সংবাদ সম্মেলন

চকরিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি: / ৬৩৭ Time View
আপডেট : বৃহস্পতিবার, ২৭ অক্টোবর, ২০২২

কক্সবাজারের চকরিয়ায় নবম শ্রেণীতে পড়ুয়া এক স্কুল শিক্ষার্থীকে জোরপূর্বক অপহরণের ঘটনা ঘটেছে। অপহরণের দশদিন পেরিয়ে গেলেও অপ্রাপ্তবয়স্ক ওই শিক্ষার্থীর এখনো হদিস মিলছে না। এ দিকে এই অপহরণের ঘটনায় জড়িত বখাটেকে আসামি করে রোববার থানায় একটি মামলা রুজু করেছেন অপহৃত শিক্ষার্থীর মা।

সন্ধান চেয়ে বৃহস্পতিবার বিকেলে চকরিয়ার একটি হোটেলে সংবাদ সম্মেলন করেছে ছাত্রীর পরিবার।
লিখিত বক্তব্যে ছাত্রীর বড় ভাই শাকিল আরব বলেন, গত ১৭ অক্টোবর বিকেল তিনটার দিকে তার বোন (১৪) বাড়ি থেকে পায়ে হেঁটে প্রাইভেট শিক্ষকের কাছে যাওয়ার সময় উপজেলার কাকারা ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের মালিপাড়া সড়ক থেকে কয়েকজনের বখাটের দল ওই শিক্ষার্থীকে জোরপূর্বক একটি গাড়িতে তুলে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যায়। সে উত্তর কাকারা মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর শিক্ষার্থী। তাদের বাড়ি ইউনিয়নের মাইজকাকারা গ্রামে। শিক্ষার্থী অপহরণে জড়িত বখাটের মো. মোবারক ওরফে বারেক (২৭)কে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। সে ইউনিয়নের একই গ্রামের মৃত নজু মিয়ার ছেলে।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত অপহৃত শিক্ষার্থীর মা সাংবাদিকদের বলেন, তাঁর অপ্রাপ্তবয়স্ক স্কুলপড়ুয়া মেয়েকে প্রায় দুইমাস ধরে কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিল বখাটে মোবারক ওরফে বারেক। এমনকি অভিভাবকদের মাধ্যমে বিয়ের প্রস্তাবও পাঠায় বাড়িতে। কিন্তু অপ্রাপ্ত বয়স্ক এবং বখাটের সঙ্গে মেয়েকে বিয়ে দিতে রাজি না হওয়ায় জোরপূর্বক অপহরণ করা হয়। বর্তমানে মেয়েটির বয়স মাত্র ১৪ বছর। তিনি আরও বলেন, অপহরণের পর স্বজনদের মাধ্যমে হুমকি দেওয়া হয়েছে আমার মেয়ের সর্বনাশ ঘটিয়ে কয়েকদিনের মধ্যে বখাটে মোবারক বিদেশ পাড়ি দেবে। তাই পুলিশের কাছে আমার অনুরোধ দ্রুত আমার মেয়েকে উদ্ধার এবং বখাটে মোবারককে গ্রেপ্তার করে কঠিন শাস্তি নিশ্চিত করতে।

এ ব্যাপারে চকরিয়া থানার ওসি চন্দন কুমার চক্রবর্তী বলেন, কাকারায় নবম শ্রেণীতে পড়ুয়া শিক্ষার্থী অপহরণের ঘটনায় মামলা নেওয়া হয়েছে। এখন বখাটে মোবারককে গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। সে যাতে বিমানবন্দর হয়ে দেশ ত্যাগ করতে না পারে সেজন্য বার্তা প্রেরণ করা হবে।##


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো ক্যাটাগরি